স্মার্টফোনের ব্যাটারি ফুলে যাওয়ার কারণ ও সমাধান

যেসব কারণে মোবাইল হ্যান্ডসেটের ব্যাটারি ফুলে যায় তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হলোঃ মোবাইল ফোন বর্তমান যুগে একটি অতি প্রয়োজনীয় জিনিস। মোবাইল ফোনের সাহায্যে আমরা আমাদের দৈনন্দিন জীবনে অনেক ধরনের কাজ করতে পারি। আজ থেকে প্রায় 30 বছর আগে থেকে মোবাইল ফোনের ব্যবহার হয়ে আসছে।

বর্তমানে পৃথিবীর মোট জনসংখ্যার 87% মানুষ মোবাইল ফোন ব্যবহার করে আসছে। শুরুর দিকে মোবাইল ফোন ধনি ও সৌখিন ব্যক্তিদের ব্যবহার করতে দেখা যেত। কিন্তু এখন মোবাইল ফোন ধনী-গরীব নির্বিশেষে সবাই ব্যবহার করে। 2012 সালের এক জরিপে দেখা গেছে 11 কোটিরও বেশি গ্রাহক মোবাইল ফোন ব্যবহার করে আসছে।

বর্তমানে মোবাইল ফোন এর জনপ্রিয়তা আরো দিনকে দিন বাড়ছে। বর্তমান বিশ্বে বিজ্ঞানের অগ্রগতিতে দেশে-বিদেশে যোগাযোগসহ শিক্ষা-সংস্কৃতি, আচার ব্যবহার ইত্যাদি ক্ষেত্রে মোবাইল ফোনের ব্যবহার অপরিসীম। তথ্য প্রযুক্তি ছাড়া বর্তমানে মানব জীবন কল্পনা করা যায় না।

স্মার্টফোনের ব্যাটারি ফুলে যাওয়ার কারণ

এসব ক্ষেত্রে মোবাইলের ব্যবহার অনস্বীকার্য। আমরা কোথায় পেতে পারি বর্তমান বিশ্বকে হাতের মুঠোয় এনে দিয়েছে এই মোবাইল ফোন। দ্রুত যোগাযোগের ক্ষেত্রে অপারেশন ভূমিকা পালন করে এই মোবাইল ফোন। পৃথিবীর দ্রুত উন্নয়নের ক্ষেত্রে এই মোবাইল ফোন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে।

তাছাড়া মোবাইল ফোন জনগণের মাঝে বিভিন্ন সেবা প্রদান করে থাকে যার মাধ্যমে তাদেরকে বিভিন্ন সেবা প্রদান করা যায়। এছাড়া সামাজিক উন্নয়নে মোবাইল ফোনের ভূমিকা ব্যাপক।

মোবাইল ফোনের মাধ্যমে খুদে বার্তা প্রদান করে জনগণের অর্থনৈতিক অবস্থা, নিরক্ষরতা, শিক্ষা ব্যবস্থা ,প্রাকৃতিক দুর্যোগ ইত্যাদি বিষয়ে সচেতন করা যায়। এসবের কারণে জাতীয় জীবনে এটি ব্যাপক প্রভাব ফেলে।

তাছাড়া এই মোবাইল ফোনের সাহায্যে আমরা ইন্টারনেট চালাতে পারি।কোন ব্যক্তির সাথে যোগাযোগ স্থাপন করতে পারি। তাদের সাথে যে কোন বিষয় নিয়ে মিটিং করতে পারি। এক বা একাধিক ব্যক্তি কে ভিডিও কলে এনে তাদের সাথে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলতে পারি।

এই মোবাইল ফোনের মাধ্যমে আমরা ইমেইল এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে পাঠাতে পারি। আবার কখনও কখনও ইন্টারনেটের মধ্যে থাকা কোনো গুরুত্বপূর্ণ তথ্যাদি , বা কোনো গুরুত্বপূর্ণ ভিডিও বা ছবি ইত্যাদি আমরা মোবাইল ফোনের সাহায্যে ইন্টারনেট থেকে অনায়াসে ডাউনলোড করতে পারি।

মোবাইল ফোন আমাদের দৈনন্দিন জীবনে এরকম অনেক কাজে আসে। তাছাড়া মোবাইল ফোন আমাদের মনকে উৎফুল্ল রাখার জন্য কাজ করে থাকে। আমরা অবসর সময় আমাদের মনকে চাঙ্গা করে তোলার জন্য মোবাইল ফোন থেকে বিভিন্ন গান ,ওয়াজ, গজল ইত্যাদি যেকোনো কিছুই আমার অনায়াসে মোবাইল থেকে দেখতে পারি।

তুই মোবাইল ফোন চালাতে আমাদের কিছু সর্তকতা অবলম্বন করতে হয়। এই মোবাইল ফোনটি কিছু হার্ডওয়ার এর সমন্বয়ে গঠিত। সেই হার্ডওয়ার গুলোর মধ্যে মোবাইলের ব্যাটারি যাকে হয়তো আমরা মোবাইলে প্রাণ বলতে পারি। এ ব্যাটারির সাহায্যে মূলত মোবাইলটি পরিচালনা হয়।

ব্যাটারির মধ্যে ডিসি সরবরাহ থাকে যারা মোবাইল পরিচালনা করা যায়। তো এখন মোবাইল ফোন ব্যবহারকারীর সবচেয়ে বড় অসুবিধা হচ্ছে মোবাইল ফোনের ব্যাটারি ফুলে যাওয়া।

এই মোবাইল ফোনের ব্যাটারি কিছু অযত্নের কারণে, কিছু অসাবধানতার কারণে ফুলে যায় বা নষ্ট হয়ে যায়। আমরা আজকে সেই বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করবো। মোবাইল ফোনের ব্যাটারি ভুলে যাওয়ার উল্লেখযোগ্য কারণগুলোর মধ্যে প্রধান প্রধান কারণগুলো হচ্ছে :

কম দামে ওর সস্তায় কিনা চার্জার ব্যবহার করা :

আমাদের ফোনের ব্যবহারিত চার্জারটি যখন অচল বা নষ্ট হয়ে পড়ে তখন আমরা খুব সহজেই বাজার থেকে একটি কমদামের চার্জার নিয়ে থাকি ।কিন্তু বাজারের উক্ত সস্তায় কম দামের চার্জার গুলো মোবাইলের ব্যাটারি ড্যামেজ এবং মোবাইল ফোন ব্লাস্ট এর অন্যতম কারণ।

ফোন হাত থেকে পড়ে যাওয়ার কারণে :

আপনি মোবাইল ফোন ব্যবহার করার সময় যদি কখনো আপনার হাত থেকে মোবাইল ফোনটি পড়ে যায় সমস্যা হতে পারে এবং সেটি ফুলে যেতে পারে। তাই আপনার যদি মনে হয় যে ব্যাটারীতে কোন ঝামেলা আছে তাহলে আপনি ব্যাটারিটি পাল্টে ফেলবে।

ব্যাটারি তৈরি করার সময় ত্রুটি :

এই ত্রুটির বেলায় ব্যবহারকারীর কোন হাত নেই। কারণ যারা ব্যাটারি তৈরি করে তারা ব্যাটারি তৈরি করার সময় যদি লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি তে সঠিকভাবে পরীক্ষা না করে তাহলে ব্যাটারীতে ত্রুটি দেখা দেয় ।

অতিরিক্ত গেম খেলা :

ফোন গরম হওয়ার অন্যতম কারণ হচ্ছে অতিরিক্ত গেম খেলা এতে করে ফোনের প্রসেসর এর উপর চাপ পড়ে।এবং ব্যাটারি নষ্ট হয়ে যাওয়া বা ফুলে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে।

অতিরিক্ত চার্জ দেয়া :

মোবাইল ফোনের ব্যাটারি নষ্ট হয়ে যাওয়ার একটি কারণ হচ্ছে অতিরিক্ত চার্জ দেয়া। আপনি যদি মোবাইল ফোনের ব্যাটারির পর্যাপ্ত পরিমাণ চার্জ হওয়ার পরেও চার্জ দেন তাহলে ব্যাটারিটি ফুলে যেতে পারে বা নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

আশা করি আপনারা উপরের সব কথা যদি মেনে চলেন তো আপনার ব্যাটারি নষ্ট হয়ে যাওয়া এবং ফুলে যাওয়া জনিত সমস্যা থেকে রক্ষা পেতে পারে এবং এ থেকে আপনারা প্রতিকার পেতে পারেন।

Add a Comment

Your email address will not be published.